Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes

বৃষ্টির শংকার মধ্যেই উজ্জীবিত বাংলাদেশ

ক্রীড়ালোক প্রতিবেদকঃ

দক্ষিণ আফ্রিকায় চলমান আইসিসি অনূর্ধ্ব-১৯ ওয়ানডে বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমি ফাইনালে মুখোমুখি হচ্ছে নিউজিল্যান্ড আর বাংলাদেশ । পচেফস্ট্রমের সেনেস পার্কে ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশের স্থানীয় সময় দুপুর দুইটায় ।

বাংলাদেশ ক্রিকেটের কোন পর্যায়েই বিশ্ব ক্রিকেটের কোন আসরের ফাইনালে খেলে নি । এবারেই প্রথম তাদের সামনে সুযোগ বিশ্বকাপের মত আসরের ফাইনালে খেলার । ইতোমধ্যেই পাকিস্তানকে গুঁড়িয়ে দিয়ে ফাইনালে জায়গা করে নিয়েছে আসরের চারবারের চ্যাম্পিয়ন ভারত । আগামী রবিবার (৯ ফেব্রুয়ারি) পচেফস্ট্রমে ভারতের সাথে যুব বিশ্বকাপ ট্রফি জয়ে লড়াইয়ে নামবে বাংলাদেশ কিংবা নিউজিল্যান্ড ।

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে সেমিতে নামার আগে ফেভারিট তকমা বাংলাদেশের গায়েই । গেলো বছর নিউজিল্যান্ডের মাটিতেই পাঁচ ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ ৪-১ ব্যবধানে জিতেছে বাংলাদেশ । সেই দলের প্রায় সবাই আছেন বর্তমান স্কোয়াডে । এছাড়া চলতি আসরেও বাংলাদেশ দেখিয়ে চলেছে আশাপ্রদ নৈপুণ্য । ‘সি’ গ্রুপ থেকে পাকিস্তান , জিম্বাবুয়ে আর স্কটল্যান্ডকে পেছনে ফেলে উঠে এসেছে কোয়ার্টার ফাইনালে । সেরা আটের লড়াইয়ে বাংলাদেশের পাত্তা পায় নি স্বাগতিক দক্ষিণ আফ্রিকা ।

অন্যদিকে ‘এ’ গ্রুপে ফেভারিট ভারতের কাছে হারলেও শ্রীলঙ্কাকে হারিয়েছে নিউজিল্যান্ড । জাপানের সাথে প্রথম ম্যাচটি বৃষ্টির কারণে পরিত্যক্ত হয় । ফলে তিন পয়েন্ট নিয়ে তারা উঠে আসে কোয়ার্টার ফাইনালে । আর সেরা আটের লড়াইয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে কোনোমতে দুই উইকেটে হারিয়ে সেমিতে জায়গা করে নিয়েছে কিউই যুবারা ।

অর্থাৎ চলতি আসরে নিউজিল্যান্ডের পথ চলাটা তত মসৃণ ছিল না , যতটা সাবলীল ছিল বাংলাদেশ । আকরবর আলীর নেতৃত্বে বাংলাদেশ দল কেবল গ্রুপের শেষ ম্যাচে পাকিস্তানের বিপক্ষে খানিকটা বেকায়দায় পড়েছিল । সেই ম্যাচে ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়া বাংলাদেশ বৃষ্টির সহায়তায় পেয়েছে এক পয়েন্ট । এছাড়া বাংলাদেশের যুবাদের আর কোন ম্যাচেই কঠিন পরীক্ষায় ফেলতে পারে নি প্রতিপক্ষরা ।

পচেফস্ট্রমের পিচ স্পিন সহায়ক , বিশেষজ্ঞরা আগেই ধারণা
দিয়েছিলেন । কোয়ার্টার ফাইনালে স্পিনার রকিবুল হাসান নিয়েছেন পাঁচ উইকেট । এটা বাংলাদেশের জন্য একটা সুখবর । এছাড়া দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে সেই ম্যাচে হাফসেঞ্চুরি পেয়েছেন তানজিদ হাসান , তৌহিদ হৃদয় আর শাহাদাৎ হোসেন । সব মিলিয়ে বাংলাদেশ দলের জন্য অনুপ্রেরণার অভাব নেই । দলে আকবর আলী আর শামিম হোসেনরা এখনও জ্বলে উঠতে পারে নি । সেমি ফাইনালের মত বড় ম্যাচে তাদের জ্বলে ওঠা হবে বাংলাদেশের জন্য প্রেরণা ।

অন্যদিকে নিউজিল্যান্ডের রাইস মাইরু আছেন ফর্মে । এই টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান চলতি আসরে পঞ্চাশের উপর গড়ে করেছেন ২০৫ রান । ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ক্রিস্টিয়ান ক্লার্ক নিয়েছেন চারটি উইকেট । এছাড়া দলে আছে ফার্গাস লেলম্যান আর বেকহ্যাম হুইলারের মত ব্যাটসম্যান । তারা যে কোন সময় ম্যাচ ঘুরিয়ে দিতে পারে । এদের বিষয়ে সতর্ক থাকতে হবে জুনিয়র টাইগারদের ।

এই মাঠে রান খুব বেশী ওঠে না । এখানে দুই দলের ইনিংসে গড় হচ্ছে ২০০.১৪ রান । আগের ম্যাচে বাংলাদেশই কেবল আড়াইশো পেরিয়েছিল । ফলে এই ম্যাচে রানের জন্য কষ্ট করতে হবে ব্যাটসম্যানদের , ধারণা করা হচ্ছে তেমনই ।

যুব বিশ্বকাপে দুই দলের লড়াই আছে সমতায় । একটি ম্যাচ পরিত্যক্ত হওয়ার সঙ্গে চার ম্যাচের মধ্যে দুটি ম্যাচ জিতে বাংলাদেশ যুব দল, দুটি ম্যাচ জিতে নিউজিল্যান্ড যুব দল। তবে শেষ দুইবার ২০০৬ ও ২০১৪ সালের লড়াইয়ে বাংলাদেশ যুব দলই জয় পায়। এবার সেমিফাইনালেও তাই বাংলাদেশ যুব দলের জয়ের আশা দেখা হচ্ছে।

বাংলাদেশ কখনও যুব বিশ্বকাপের ফাইনালে না খেললেও নিউজিল্যান্ড খেলেছে ১৯৯৮ সালের আসরে । বাংলাদেশ এবারেই প্রথম বিদেশের মাটিতে সেমিতে খেলছে । এখন পর্যন্ত যুব বিশ্বকাপে বাংলাদেশের সেরা সাফল্য তৃতীয় হওয়া । সেটাও নিজেদের মাটিতে । এবার সেই ইতিহাস বদলাতে মরিয়া বাংলাদেশ ।

যদিও নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে একটা শংকা আছে বাংলাদেশের । এই দলটা খুবই লড়াকু । সহজে হারতে না চাওয়া কিউই যুবারা একেবারে শেষ পর্যন্ত লড়াই করে জিতেছে শ্রীলঙ্কা আর ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে । ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে কোয়ার্টার-ফাইনালে ২৩৯ রানের লক্ষ্য তাড়ায় ১৫৩ রানে ৮ উইকেট হারিয়ে ফেলেছিল কিউইরা। নবম উইকেট জুটির দৃঢ়তায় দুই বল বাকি থাকতেই লক্ষ্য স্পর্শ করে তারা।

বাংলাদেশের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচে ১১৩ রানের লক্ষ্য তাড়ায় ৬৩ রানে ৬ উইকেট হারিয়েছিল নিউ জিল্যান্ড। এরপর আর কোনো উইকেট না হারিয়ে লক্ষ্য ছুঁয়ে ফেলে দলটি। বাংলাদেশকে আবারও মরণ-কামড় দিতে প্রস্তুত দলটি ।

এদিকে এই ম্যাচে আবহাওয়ার পূর্বাভাসে আছে বৃষ্টির শঙ্কা। এ নিয়ে না ভেবে নিজেদের খেলার দিকে মনোযোগ দিচ্ছে বাংলাদেশ। ব্যাটে-বলে-ফিল্ডিংয়ে নিজেদের মেলে ধরে আকবররা এগিয়ে যেতে চান ইতিহাসের পথে। তবে বৃষ্টিতে সেমি ফাইনাল খেলা পরিত্যক্ত হলে কিন্তু শ্রেয়তর রান রেটের হিসেবে ফাইনালে যাবে বাংলাদেশ ।

আইসিসির এই টুর্নামেন্টের বিধি অনুযায়ী, যদি কোনো কারণে ম্যাচে ফল না হয়, মানে ফলহীন ‘নো রেজাল্ট’ ম্যাচ হয়, তবে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব-১৯ দল ফাইনালে যাবে গ্রুপপর্বে শ্রেয়তর পয়েন্টের কারণে।

ফলহীন ম্যাচ হওয়ার ভালো সম্ভাবনাই আছে। কারণ পচেফস্ট্রুমের আবহাওয়ার পূর্বাভাসে ঝুলছে বৃষ্টির সম্ভাবনা।

গ্রুপপর্বে জিম্বাবুয়ে ও স্কটল্যান্ডকে উড়িয়ে শুরু করার পর পাকিস্তানের বিপক্ষে শেষ গ্রুপ ম্যাচে বৃষ্টিতে ভেসে গিয়েছিল বাংলাদেশের খেলা। তবুও গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হয়েই নকআউট পর্বে আসা নিশ্চিত হয় টাইগারদের। শ্রেয়তর রানরেটে এগিয়ে। গ্রুপ সি’তে টাইগারদের পয়েন্ট ছিল ৫।

পাকিস্তানেরও পয়েন্ট ৫’ই ছিল, তারা সেমিফাইনালে ভারতের কাছে হেরে টুর্নামেন্ট শেষ করেছে। বাংলাদেশ ও নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার জয়ী দল ৯ ফেব্রুয়ারির ফাইনালে এই ভারতেরই সঙ্গী হবে।

কোয়ার্টার ফাইনালে জয় পাওয়ায় দুই দলের একাদশেই কোন পরিবর্তন না আনার আভাস দিয়েছেন টিম ম্যানেজমেন্ট ।

বাংলাদেশের সম্ভাব্য একাদশ –

পারভেজ হাসান ইমন , তানজিদ হাসান , মাহমুদুল,হাসান জয় , তৌহিদ হৃদয় , শাহাদাৎ হোসেন , শামিম হোসেন , আকবর আলী , রকিবুল হাসান , শরিফুল ইসলাম , তানজিম হাসান সাকিব , হাসান মুরাদ

নিউজিল্যান্ড একাদশ –

রাইস মারিউ , ওলি হোয়াইট , ফার্গাস লেলম্য্যান , জেসে তাস্কফ , কুইন সুন্ডে , সিমন কিন , বেকিহ্যাম হুইলার , আদিত্য অশোক , জো ফিল্ড , ক্রিস্টিয়ান ক্লার্ক , ডেভিড হেনকক

আহাস/ক্রী/০০৩