Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes

ওয়ানডে ক্রিকেটে একাই নিলেন ১০ উইকেট !

ক্রীড়ালোক প্রতিবেদকঃ

ক্রিকেটের এক ইনিংসে পুরো ১০ উইকেট নেয়া একজন বোলারের জন্য স্বপ্নেরও বেশী ব্যাপার । টেস্ট ক্রিকেটে এমন ঘটনা ঘটেছে মাত্র দুইবার । ইংল্যান্ডের জিম ল্যাকার আর ভারতের অনিল কুম্বলের মাধ্যমে দেড়শ বছরের টেস্ট ইতিহাসে মাত্র দুইবার এমন ঘটনা দেখেছে ক্রিকেট বিশ্ব । কিন্তু সীমিত ওভারের ক্রিকেটে এমন ঘটনা দুইদিন আগেও ভাবতে পারে নি কেউ ।

কিন্তু সেই অভাবনীয় ঘটনাই ঘটিয়ে দিয়েছেন ভারতীয় নারী ক্রিকেটার কেশভী গৌতম । তিনি নিজ দেশের ঘরোয়া ওয়ানডে ক্রিকেটে এক ম্যাচেই নিয়েছেন প্রতিপক্ষের ১০ উইকেটের সব কয়টি । আর নাম লিখিয়েছেন বিশ্বরেকর্ডের খাতায় ।

সোমবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) অন্ধ্র প্রদেশের কেড়াপায় ঘটেছে ওয়ানডে ক্রিকেটের অবিশ্বাস্য ঘটনা । কেএসআরএম কলেজ গ্রাউন্ডে অনূর্ধ্ব-১৯ স্তরের চন্ডিগড় ও অরুণাচল প্রদেশের মধ্যকার ম্যাচে ১০ উইকেট শিকার করেন কেশভী । তিনি আবার চণ্ডীগড় অনূর্ধ্ব-১৯ দলের অধিনায়ক ।

ম্যাচে হ্যাট্রিকসহ পুরো ১০ উইকেট নিজের ঝুলিতে পুরেছেন কেশভী । মাত্র ৪.৫ ওভার বল করে একটি মেইডেনসহ ১০ উইকেট নেয়ার বিশ্বরেকর্ড গড়েন তিনি ।

ম্যাচে নিজের প্রথম ওভারেই দুই উইকেট নেন কেশভী । আর দ্বিতীয় ওভারের শেষ তিন বলে পর পর উইকেট নিয়ে করেন হ্যাট্রিক । তৃতীয় ওভার করতে এসে আবারও দুই উইকেট নেন কেশভী । তার মারাত্মক বোলিংয়এে এক পর্যায়ে দুই অইংকের রান করার আগেই সাত উইকেট হারিয়ে বসে প্রতিপক্ষ ।

আর ম্যাচের নবম এবং নিজের পঞ্চম ওভারে মিডিয়াম পেসার কেশভী নেন আরও তিন উইকেট । ফলে ২৫ রানেই অল আউট হয়ে যায় অরুনাচল প্রদেশ । হারে ১৬১ রানের বিশাল ব্যবধানে ।

চণ্ডীগড়ের হয়ে ১০ উইকেট নেয়ার ম্যাচে ব্যাট হাতেও অনবদ্য ছিলেন কেশভী । করেছেন ৬৮ বলে ৪৯ রান । ম্যাচে আগে ব্যাট করা চণ্ডীগড় ৫০ ওভারে তোলে চার উইকেটে ১৮৬ রান ।

১৯৫৬ সালে ইংল্যান্ডের জিম লেকার অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে প্রথম ১০ উইকেট নেয়ার কৃতিত্ব দেখান । তবে ১০ উইকেট নিতে স্পিনার লেকারকে করতে হয়েছে ৫১.২ ওভার। এরপর ১৯৯৯ সালে চির প্রতিদ্বন্দ্বী পাকিস্তানের বিপক্ষে টেস্টে এ কীর্তি গড়েন ভারতের অনিল কুম্বলে। তাকেও হাত ঘুরাতে হয়েছে ২৬.৩ ওভার। ৭৪ রানের বিনিময়ে পাকিস্তানের সব উইকেট নিজের নামে করে নেন কুম্বলে ।

আন্তর্জাতিক ওয়ানডেতে সর্বোচ্চ ৮ উইকেট নেওয়ার কীর্তি আছে শ্রীলঙ্কার চামিন্দা ভাসের। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ১৯ রানের বিনিময়ে ৮ উইকেট নেন এ বাঁহাতি পেসার। 

আহাস/ক্রী/০১০