Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes

বিপিএলে একই দলে সাকিব আর মাশরাফি !

ক্রীড়ালোক প্রতিবেদকঃ

আগামী ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহে মাঠে গড়াচ্ছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগের (বিপিএল) সপ্তম আসর । আসন্ন আসরকে সামনে রেখে ইতোমধ্যেই নিজেদের দল গোছাতে শুরু করেছিল ফ্রেঞ্চাইজিরা । কিন্তু হটাত করেই বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি) জানায় , আগামী বিপিএলের জন্য এই মুহূর্তে নতুন কাউকে দলে নেয়ার এখতিয়ার কোন ফ্রেঞ্চাইজির নেই । কারণ ফ্রেঞ্চাইজিদের সাথে বিসিবি’র পুরনো চুক্তি বাতিল হয়ে গেছে । নতুন চুক্তি করেই ফ্রেঞ্চাইজিরা খেলোয়াড় নিতে পারবে আগামী আসরের জন্য !

বিসিবি সাফ জানিয়ে দিয়েছে , নতুন আসরের আগে সব ফ্রেঞ্চাইজিকে আগে চুক্তি নবায়ন করতে হবে, পরে ঠিক হবে রিটেশন বা দলে ভেড়ানোর নিয়ম কানুন। বিসিবির এমন সিদ্ধান্তের পর ফ্রেঞ্চাইজিরাও বসে নেই । তারাও অন্তত দুজন বিদেশি আর একজন আইকন বা এ প্লাস ক্যাটাগরির পারফরমার আগে থেকে দলে রাখার নিশ্চয়তা চায়। মানে অন্তত দুজন বিদেশি দলে ভেড়ানোর পাশাপাশি দেশের আইকন বা এ প্লাস ক্যাটাগরির তারকাকে আগে থেকে দলে নেয়ার দাবিতে সোচ্চার।

এমন দাবী এসেছে ঢাকা ডায়নামাইটস , খুলনা টাইটান্স , রাজশাহী কিংস এবং রংপুর রাইডার্সের পক্ষ থেকে ।

মঙ্গলবার বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের সঙ্গে দেখা করে পরের আসরের ইস্যু নিয়ে কথা বলতে মিরপুর শেরে বাংলা স্টেডিয়ামে আসেন রংপুর রাইডার্সের প্রধান নির্বাহী ইশতিয়াক সাদেক । তিনি আগামী চার বছরে রংপুরের বিপিএল খেলার বিষয় নিশ্চিত করেন ।

ইতিমধ্যেই রংপুর রাইডার্স দলে টেনেছে ঢাকা ডায়নামাইটস অধিনায়ক সাকিব আল হাসানকে। যদিও বিসিবি জানাচ্ছে , এই চুক্তি পুরো বৈধ না । কিন্তু রংপুর সাকিবকে ছাড়বে না , এটাও নিশ্চিত । এদিকে গত দুই আসর ধরে রংপুরকে নেতৃত্ব দিয়ে আসছেন মাশরাফি বিন মুর্তজা।এখন প্রশ্ন হচ্ছে , একই দলে দুইজন ‘আইকন’ খেলোয়াড় সাকিব আর মাশরাফি খেলতে পারবেন কিনা !

বিপিএলে মাশরাফি ‘আইকন’ হিসেবেই খেলে আসছেন। কিন্তু এবার তিনি কী হিসেবে খেলবেন তা এখনো নিশ্চিত নয়। মাশরাফির আন্তর্জাতিক ক্যারিয়ার একেবারে শেষ প্রান্তে। তিনি টি-২০ থেকে অবসর নেন ২০১৭ সালে। টেস্ট ক্রিকেট থেকে তিনি আনুষ্ঠানিক অবসর না নিলেও গত প্রায় ১০ বছর ধরে এই ফরম্যাটে খেলেন না। আর বিপিএলের আগেই যদি তিনি ওয়ানডে থেকেও অবসর নিয়ে নেন তাহলে তাকে ‘আইকন’ হিসেবে রাখা হবে কি না তা নিয়ে উঠেছে প্রশ্ন।

মঙ্গলবার মিরপুরে বিপিএল গভর্নিং কাউন্সিলের সঙ্গে বৈঠক ইশতিয়াক সাদিক বলেছেন, ‘যতটুকু জানতে পেরেছি, মাশরাফি অবসর নিলে আইকন থাকবেন না। আমাদের ভাবনাতে ছিল, মাশরাফি-সাকিব দুজনই রংপুরে খেলবে।’

গত আসরেই নাকি মাশরাফি ‘আইকন’ হিসাবে খেলতে চাননি। এ বিষয়ে রংপুরের প্রধান নির্বাহী বলেছেন, ‘মাশরাফি আন্তর্জাতিক টি-২০ খেলেন না। বিপিএল হচ্ছে টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্ট। স্বাভাবিকভাবেই মাশরাফিকে আইকন রাখা যায় না। আইকন হবে নতুন কোনো সম্ভাবনাময়ী খেলোয়াড়। বোর্ড বলছে, আমাদের দেশে যথার্থ সাতজন আইকন ক্রিকেটার নির্ধারণ করা কঠিন। মাশরাফিরও আইকন থাকার ইচ্ছা নেই। তবে, আমাদের পরিকল্পনায় মাশরাফি রিটেনশন তালিকায় আছে। মাশরাফি যদি সাধারণ ক্রিকেটার হিসাবে উন্মুক্তও থাকে তাহলেও আমরা তাকে দলে নেয়ার চেষ্টা করব।’

রংপুরের সিইওর শেষ কথা, মাশরাফিকে যদি ওপেন করে দেয়া হয়, তাহলে অবশ্যই আমরা তাকে দলে রাখতে চাইব। সেক্ষেত্রে একই দলে একসঙ্গে দেখা যেতে পারে সাকিব-মাশরাফিকে।

আহাস/ক্রী/০০১