Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes

মাত্র বিশ বছর বয়সেই ১২৯ গোল !

ক্রীড়ালোক প্রতিবেদকঃ

ফুটবল ইতিহাসের অন্যতম সেরা খেলোয়াড় দিয়াগো ম্যারাডোনা । ১৯৮৬ সালে প্রায় এককভাবে বিশ্বকাপ জিতিয়ে যিনি পরিনত হয়েছেন আর্জেন্টিনার ফুটবল ইশ্বরে । আর্জেন্টিনাকে উঠিয়েছিলেন ১৯৯০ সালের বিশ্বকাপ ফাইনালে । ক্যারিয়ারজুড়ে নানা বিতর্কিত কাণ্ডের জন্ম দেয়া ম্যারাডোনাই আর্জেন্টিনার সর্বকালের সেরা ফুটবলার ।

১৯৬০ সালের ৩০ অক্টোবর আর্জেন্টিনার রাজধানী বুয়েন্স আইরিসে জন্মগ্রহণ করেন ম্যারাডোনা । মাত্র ১০ বছর বয়সে স্থানীয় এস্ত্রেল্লা রোজার হয়ে জুনিয়র ফুটবলে খেলা শুরু করেন । ১৩ বছর বয়সে লস ক্যাবিলেতোসের হয়ে জাতীয় জুনিয়র প্রতিযোগিতায় খেলার সময় তিনি নজরে আসেন আর্জেন্টিনা জুনিয়র্স ক্লাবের । তাদের হয়েই পেশাদার ক্যারিয়ার শুরু হয়েছিল ম্যারাডোনার ।

১৯৭৬ সালের ২০ অক্টোবর ম্যারাডোনার পেশাদার ফুটবলে অভিষেক হয় । সেইদিন তার বয়স ছিল ১৬ বছর ১০দিন । ১৬ নাম্বার জার্সি পড়ে মাঠে নেমেই ইতিহাস গড়েন ম্যারাডোনা । হয়ে যান আর্জেন্টিনার প্রিমিয়ার লীগের ইতিহাসে সবচেয়ে কম বয়সী ফুটবলার । সেই বছরের ১৪ নভেম্বর ম্যারাডোনা তার পেশাদার ক্যারিয়ারের প্রথম গোল করেন মারপালেসেন্তের বিপক্ষে ।

১৯৭৬ থেকে ১৯৮১ সাল পর্যন্ত আর্জেন্টিনা জুনিয়র্স ক্লাবের হয়ে খেলেছেন ম্যারাডোনা । সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ১৬৬ ম্যাচে করেন ১১৬ গোল । সেই সময়ে তিনি প্লে-মেকারের চাইতে দলের দ্বিতীয় স্ট্রাইকার হিসেবে খেলতেই পছন্দ করতেন বেশী । পরবর্তীতে তিনি পরিনত হয়েছেন এটাকিং মিডফিল্ডারে ।

এই সময়ে ম্যারাডোনা আর্জেন্টিনা অনূর্ধ্ব-২০ দলের হয়ে ২৪ ম্যাচে করেছেন ১৩ গোল । অর্থাৎ বিশ বছর বয়সের মধ্যেই ম্যারাডোনা করে ফেলেন ১২৯ গোল ! অথচ গোটা ক্যারিয়ারে ক্লাব আর জাতীয় দল মিলিয়ে ম্যারাডোনা করেছেন ৩৪৪ গোল । তার ক্যারিয়ার ছিল ২১ বছরের । অর্থাৎ ক্যারিয়ারের তিন ভাগের এক ভাগের বেশী গোল তিনি করেছেন প্রথম চার বছরেই । পরে পুরো মিডফিল্ডার ভুমিকায় চলে আসায় নিজে গোল করার চেয়ে অন্যদের দিয়ে করানোয় মনযোগী হয়ে পড়েন ম্যারাডোনা ।

ক্লাব ফুটবলে ম্যারাডোনা একাধিকবার ট্র্যান্সফারের বিশ্বরেকর্ড গড়েন । ১৯৮১ সালে নিজের স্বপ্ন পূরণ করেন বোকা জুনিয়র্সের হয়ে । সেই সময় তার জন্য আর্জেন্টিনার সেরা ক্লাবকে দিতে হয় চার মিলিয়ন মার্কিন ডলার ট্র্যান্সফার ফি । ১৯৯৭ সালে বোকা জুনিয়র্সের হয়েই ফুটবল ক্যারিয়ারের ইতি টানেন ম্যারাডোনা ।

১৯৮২ সালের বিশ্বকাপেরর ম্যারাডোনাকে পাঁচ মিলয়ন ইউরোর বিনিময়ে দলে ভেড়ায় স্প্যানিশ জায়ান্ট বার্সেলোনা । সেই সময়ে এটাই ছিল ট্র্যান্সফার ফিয়ের বিশ্বরেকর্ড । এছাড়া ম্যারাডোনা ১৯৮৪ সালে আরও একবার বিশ্বের সবচেয়ে দামী ফুটবলারে পরিনত হন । যখন ইটালির ক্লাব ন্যাপলি তাকে কিনে নেয় ৬.৯ মিলিয়ন ইউরোতে ।

আহাস/ক্রী/০০৪