Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes

এক বছরের নিষেধাজ্ঞার কবলে পেসার কাজী অনিক !

ক্রীড়ালোক প্রতিবেদকঃ

গেলো মাসেই বাংলাদেশের ক্রিকেটের জন্য বড় এক ধাক্কা হয়ে এসেছে সাকিব আল হাসানের নিষেধাজ্ঞা । জুয়াড়িদের কাছ থেকে ম্যাচ ফিক্সিংয়ের প্রস্তাব পেয়েও সেই তথ্য গোপন রাখার অপরাধে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের অভিভাবক সংস্থা ‘আইসিসি’ এক বছরের জন্য নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে সাকিবকে । এই সময়ের মধ্যে কোন ধরণের ক্রিকেট সংশ্লিষ্ট বিষয়ে অংশ নিতে পারবেন না বাংলাদেশের সাবেক হওয়া টেস্ট আর টি-২০ অধিনায়ক ।

সাকিবের নিষেধাজ্ঞার খবর বাসী হতে না হতেই আসছে আরেক দুঃসংবাদ । এবার নিষিদ্ধ হতে পারেন তরুণ পেসার কাজী অনিক । জানা গেছে , ডোপ টেস্টে পজিটিভ হওয়ায় নিষেধাজ্ঞার কবলে পড়তে চলেছেন তিনি ।

২০ বছর বয়সী অনিককে এবারের বিপিএল ড্রাফটে রাখা হয়নি এবং জাতীয় ক্রিকেট লিগেও খেলতে পারেননি। যা সবাইকে অবাক করেছে । কারণ গেলো মৌসুমে তিনি বিপিএলে ও অনূর্ধ্ব ১৯ দলের হয়ে দুর্দান্ত পেস বোলিং করে নজর কাড়েন সবার । অথচ এবার তাকে খেলতে দেয়া হচ্ছে না ।

পরে এই বিষয়ে জানা যায়, টেকনিক্যাল কারণে নেই কাজী অনিক। তবে এখন পর্যন্ত এ প্রসঙ্গে বিস্তারিত জানায়নি বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড (বিসিবি)।

কিন্তু এখন বিসিবির ভেতরের সুত্র অনুসারে ডোপিংয়ের কারণে বাদ পড়েছেন অনিক। যার ফলে এবারের সদ্য শেষ হওয়া এনসিএলে (জাতীয় ক্রিকেট লিগ) দেখা যায়নি তাকে। রাখা হয় নি বিপিএলের ড্রাফ্‌টে ।

সর্বশেষ খবর , ডোপ টেস্টে পজিটিভ রেজাল্ট এসেছে। এবার হয়ত বড়ধরনের শাস্তি পেতে যাচ্ছে কাজী অনিক। কমপক্ষে একবছর নিষিদ্ধ হতে পারে।

এই মুহূর্তে ভালো পেসারের অভাবে ভোগা বাংলাদেশের জন্য কাজী অনিকের নিষেধাজ্ঞা দুঃসংবাদ বটে । সেই সাথে এত অল্প বয়সে ঠিকমতো ক্যারিয়ার গড়ার আগেই তার মত তরুণ খেলোয়াড়ের ডোপ টেস্টে আটকে পড়া একটা অশনি-সংকেত । হঠাৎ করে ক্রিকেট খেলে নামযশের সাথে বিপুল অর্থের সমাগম এই দেশের উঠতি খেলোয়াড়দের বিপথে ঠেলে দিচ্ছে কিনা সেটাও দেখার বিষয় । এই বিসিবি’র নজরদারি ক্রিকেটারদের উপর আরও বাড়াতে হবে এবলে মনে করছেন অনেকেই ।

আহাস/ক্রী/০০৬