Download WordPress Themes, Happy Birthday Wishes

দুর্দান্ত রেকর্ড গড়ে নিউজিল্যান্ডকে হারিয়েছে শ্রীলংকা

ক্রীড়ালোক প্রতিবেদকঃ

নিউজিল্যান্ডকে ছয় উইকেটে হারিয়ে গ্যল টেস্ট জিতে নিয়েছে শ্রীলংকা । সেই সাথে গ্যলে গড়েছে সর্বোচ্চ রান তাড়া করে জয়ের নতুন ইতিহাস । গ্যলে শ্রীলংকার সামনে চতুর্থ ইনিংসে জয়ের জন্য টার্গেট ছিল ২৬৮ রানের । যা কিনা প্রায় অসম্ভব টার্গেট । কারণ গ্যলে এর আগে তিন অংকের রান তাড়া করেই জয়ের কোন রেকর্ড নেই । এখানে রান তাড়ার আগের রেকর্ড ছিল কেবল ৯৯! অথচ সেই ইতিহাস আজ বদলে দিয়েছে স্বাগতিক শ্রীলংকা ।

গ্যলে শেষ হওয়া প্রথম টেস্টের প্রথম ইনিংসে নিউজিল্যান্ড তুলেছিল ২৪৯ রান । জবাবে শ্রীলংকার প্রথম ইনিংস শেষ হয় ২৬৭ রানে । আর কিউইরা নিজেদের দ্বিতীয় ইনিংসে তোলে ২৮৫ রান । ২৬৮ রানের টার্গেট শ্রীলংকা পূরণ করে মাত্র চার উইকেট হারিয়ে ।

রবিবার বিনা উইকেটে ১৩৩ রান নিয়ে খেলতে নামে শ্রীলংকা । জয়ের জন্য শেষ দিনে তাদের প্রয়োজন ছিল ১৩৫ রান । আর নিউজিল্যান্ডের ১০ উইকেট । কিন্তু নিউজিল্যান্ড পারে নি লক্ষ্য পূরণ করতে ।

শেষ দিন ব্যাট করতে নেমে শুরু থেকে ইচিবাচক মনোভাবে ব্যাটিং করতে থাকেন দুই ওপেনার দিমুথ করুনারত্নে এবং লাহিরু থিরিমান্নে। দুজনের ব্যাটে ভর করে দলীয় ১৫০ পার করে লঙ্কানরা।

দলীয় ১৬১ রানে ৬৪ রান করা থিরিমান্নে উইলিয়াম সভারভিলের বলে বিদায় নিলে তিন নম্বরে নামা কুশল মেন্ডিসও বিদায় নেন অল্প রানে। দ্রুত দুই উইকেট হারালেও একপ্রান্তে আগলে ব্যাট করতে থাকেন অধিনায়ক করুনাররত্নে।

প্রতিপক্ষের বোলারদের বিপক্ষে দারুন ব্যাটিং করে তুলে নেন সেঞ্চুরি। ১২২ রান করে তিনি বিদায় নিলেও সে সময় জয়ের খুব কাছে পৌঁছে যায় শ্রীলংকা। ২৫০ রানে কুশল পেরেরা ফিরলেও ৬ উইকেট হাতে রেখে জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় স্বাগতিকরা।

অ্যাঞ্জেলো ম্যাথিউস ২৮ এবং ধনঞ্জয় ডি সিলভা ১৪ রানে ক্রিজে অপরাজিত থাকেন। নিউজিল্যান্ডের পক্ষে ট্রেন্ট বোল্ট, টিম সাউদি, টম সামারভিল এবং এজাজ প্যাটেল নেন একটি করে উইকেট।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

নিউজিল্যান্ড (প্রথম ইনিংস):
২৪৯/১০ (৮৩.২ ওভার) (টেলর ৮৬*; হ্যানরি ৪২; ধনঞ্জয়া ৫/৫৭)

শ্রীলংকা (প্রথম ইনিংস): ২৬৭/১০ (৯৩.২ ওভার) (মেন্ডিস ৫৩, ম্যাথুস ৫০, ডিকওয়েলা ৬১; প্যাটেল ৫/৮৯)

নিউজিল্যান্ড (দ্বিতীয় ইনিংস):
২৮৫/১০ (১০৬ ওভার) ( ওয়াটলিং ৭৭, লাথাম ৪৫, সমারভিলে ৪০*; এম্বুলদেনিয়া ৪/৯৯)

শ্রীলংকা (দ্বিতীয় ইনিংস):
২৬৮/৪ (৮৬.১ ওভার) (করুনারত্নে ১২২*, থিরামান্নে ৬৪*) (বোল্ট ১/৩৩)

আহাস/ক্রী/০০৬